শুক্রবার, ২৪ মে, ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ
বাংলাদেশকে ৯৬ সালের বিশ্বকাপজয়ী শ্রীলঙ্কা মনে হচ্ছে বুলবুলের  » «   র‌্যাব-চোরাচালানি সংঘর্ষ, আটকদের ছাড়াতে সিলেট-তামাবিল সড়ক অবরোধ !  » «   সিলেটে এবার সুবিধাবঞ্চিতদের ‘দুই টাকায় ঈদের খুশি’  » «   যেখানেই প্রতিবন্ধকতা সেখানেই ডিসি ফয়সাল, খুশি সিলেটের মানুষ  » «   যেসব চ্যানেলে দেখা যাবে বিশ্বকাপের ম্যাচ  » «   ঈদের বাজারে ‘পরকীয়া’, দাম ১৪,৭০০ টাকা  » «   নবীগঞ্জে জমে উঠেছে ঈদের কেনাকাটা  » «   সিলেটে উদ্বোধনের আগেই আড়াই কোটি টাকার ব্রিজে ফাটল  » «   যুক্তরাজ্য শেফিল্ড আওয়ামী লীগের ইফতার ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত  » «   ব্রিটেনের কার্ডিফে শহীদ মিনার নির্মানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৬৬ হাজার পাউন্ড দান  » «  

৯ মিনিটে ৬ সন্তানের জন্ম দিলেন নারী!

সুরমা নিউজ ডেস্ক:
যমজ সন্তান প্রসব করার ঘটনা নতুন কিছু নয়। দুই বা ততোধিক সন্তান প্রসবের ঘটনাও পৃথিবীতে বিরল নয়। তবে সন্তান প্রসবের ক্ষেত্রে রেকর্ড বুকে নাম লিখিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের এক মার্কিন নারী।

নয় মিনিটে ছয়টি শিশুর জন্ম দিয়েছেন তিনি। যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাসের দ্য উওম্যান হসপিটালে এ শিশুগুলোর জন্ম দিয়েছেন এই নারী।

যা রীতিমতো অবাক করেছে সকলকে। স্থানীয় সময় শুক্রবার বিকাল ৪টা ৫০ মিনিট থেকে ৪টা ৫৯ মিনিটের মধ্যে তিনি যমজ সন্তানের প্রসব করেন।

যিনি ছয় সন্তান প্রসব করেছেন তার নাম থেলমা শিয়াকা। প্রসব সন্তানদের মধ্যে চারজন ছেলে ও দুই মেয়ে। মা ও তার ছয় সন্তান সুস্থ আছে।

হাসপাতালের তরফে একটি ফেসবুক পোস্টে বলা হয়েছে, এখনও পর্যন্ত ছয়টি শিশুই সুস্থ রয়েছে। তবে তাদের প্রত্যেককেই অ্যাডভান্সড নিওনেটাল ইনটেনসিভ কেয়ার ইউনিটে রাখা হয়েছে।

চিকিৎসকরা শিশুগুলোর ওজনের কারণেই তাদের পর্যবেক্ষণে রেখেছেন। দুটি মেয়ের নাম রেখেছেন জিনা ও জুরিয়েল। তবে চারটি পুত্র সন্তানের নাম এখনো ঠিক করা হয়নি।

উইমেনস হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, ছয় সন্তানের ওজন এক পাউন্ড ১২ আউন্স থেকে দুই পাউন্ড ১৪ আউন্সের মধ্যে। তাদের আরও কয়েক দিন হাসপাতালে রাখা হবে।

পৃথিবীতে সাড়ে ৪৭০ কোটি মানুষের মধ্যে মাত্র একজনের ক্ষেত্রে এ ধরনের ঘটনা ঘটে থাকে বলে জানান চিকিৎসা বিজ্ঞানীরা।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
Share on Facebook
Facebook
0Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin
Email this to someone
email
Print this page
Print

সর্বশেষ সংবাদ

error: Content is protected !!