মঙ্গলবার, ১৯ মার্চ, ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ চৈত্র ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ
মুক্তিযোদ্ধা নুরুল হক খানের নামে সিলেটে রাস্তা নামকরণের দাবি প্রবাসীদের  » «   মেয়েকে বলেছি তোমার মা আল্লাহর কাছে, আমিই এখন তোমার মা এবং বাবা  » «   সিলেটে ধর্ষণ ও সন্তানদেরকে গুম করে ফেলার হুমকি ছাত্রলীগ নেতার  » «   ১৪দিনেও উদ্ধার হয়নি ব্রিটিশ কন্যার স্বামী, মামলা নিচ্ছে না পুলিশ  » «   যুক্তরাজ্যে দয়ামীর ইউনিয়ন এডুকেশন ফোরাম ইউকের আত্মপ্রকাশ  » «   সুনামগঞ্জে আ.লীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যা, আটক ৪  » «   সিলেটসহ সাত জেলায় সেনা কর্মকর্তার স্ত্রী-সন্তানসহ ১০ জনের মৃত্যু  » «   সিলেটে মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে নির্বাচিত যারা  » «   নৌকার প্রার্থী আতাউরের বাড়িতে বিদ্রোহী প্রার্থী বিজয়ী পল্লব!  » «   হবিগঞ্জে প্রেমিকের সাথে অভিমান করে কলেজছাত্রীর আত্মহত্যা  » «  

আমেরিকায় বাংলা‌দেশের নামে সড়কের নামকরণ

আহমেদ রাজু, নিউজার্সি :
আমেরিকায় বাংলাদেশি বহুল নগরীর নিউজার্সির প্যাটারসনে। একসময় শিল্প কারখানায় এগিয়ে থাকা এ নগরীতে বাংলাদেশিদের আগমন ঘটেছে অনেক আগেই। মূলত সিলেট অঞ্চল থেকে আসা প্রবাসীরা তাদের পূর্বসূরিদের পদচিহ্ন ধরে এ নগরীতে তাদের চাঞ্চল্য শুরু করেন। এ নগরীরই এক সড়কের নাম ‘জালালাবাদ স্ট্রিট’। নগরী কর্তৃপক্ষের অর্থ সাহায্যে নির্মিত হয়েছে স্থায়ী শহীদ মিনার। এখন ‘বাংলাদেশ বুলেভার্ড’ নামে সড়কের নামকরণ করা হয়েছে প্যাটারসন নগরীতে। শহরের ইউনিয়ন এভিনিউ সড়কের নাম পরিবর্তন করে ‘বাংলাদেশ বুলেভার্ড’ করা হয়।

আমেরিকান প্রবাসী কয়েকজন বলেন, প্রবাসী বাঙালিরা এবং বাংলাদেশী আমেরিকান যারা আমরা আমেরিকাতে বসবাস করি তাদের জন্য এবং ভবিষ্যত প্রজন্মের জন্য অনেক বড় একটি পাওয়া। আজ আমরা ইতিহা‌সের অংশ হলাম। এতে ইতিহাসের পাতায় নাম উঠ‌লো ‘বাংলাদেশ বুলেভার্ড’ না‌মে এক‌টি গুরুত্বপূর্ণ সড়ক। আজ বাংলাদেশের জন্য অনেক গ‌র্বের ও আন‌ন্দের দিন। বিশেষ করে যার অবদান সব থেকে বেশী তিনি হলেন কাউন্সিলম্যান শা‌হিন খা‌লিক। তাঁর সুদক্ষ নেতৃত্ব আজ প্রবাসী বাংলা‌দেশীরা পেল নিজ দে‌শের না‌মে সড়ক।

নিউজার্সি অঙ্গরাজ্যের প্যাটারসন ও আশপাশের এলাকায় ১০/১৫ হাজার প্রবাসী বাংলাদেশির বসবাস। তাদের দীর্ঘদিনের দাবি বাংলাদেশ নামে সেখানকার একটি রাস্তা হোক। ৪/৫ বছর আগে স্থানীয় প্রবাসী বাংলাদেশির উদ্যোগে এবং জনপ্রতিনিধিদের সহযোগিতায় ‘জালালাবাদ স্ট্রিট ’ নামে একটি সড়ক হয়েছে। ২০১৪ সালে নিউজার্সিতে প্রথমবারের মতো বাংলাদেশিদের প্যারেড অনুষ্ঠিত হয়। এ ছাড়া সেখানে সিটি প্রশাসনের সহযোগিতায় ২০১৫ সালে স্থায়ী শহীদ মিনার নির্মাণ হয়েছে; যা বাংলাদেশি কমিউনিটির সাফল্য হিসেবে অনেকেই মনে করছেন।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
Share on Facebook
Facebook
1kTweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin
Email this to someone
email
Print this page
Print

সর্বশেষ সংবাদ

error: Content is protected !!