বুধবার, ২২ মে, ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ
রাজনগরে নির্বাচিত চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যানদের দায়িত্ব গ্রহণ  » «   সহীহ-শুদ্ধ কুরআন শিক্ষা দিচ্ছে দারুল কিরাত মজিদিয়া ফুলতলী ট্রাস্ট  » «   সরকারি কর্মকর্তাদের কী বলে ডাকবেন জানতে চেয়ে আবেদন  » «   মৌলভীবাজারে সংস্কারের দাবিতে সড়কে ধান রোপণ করে প্রতিবাদ  » «   ব্রিটেনে স্টুডেন্ট ভিসায় পড়তে যাওয়া ৩৪ হাজার শিক্ষার্থীর জীবন বিপন্ন  » «   সিলেটে ইষ্টিকুটুম-মধুবনকে জরিমানা, নিষিদ্ধ মোল্লা লবণ-পচা খেজুর জব্দ  » «   সিলেটে অবৈধ মাইক্রোবাস স্ট্যান্ড গুড়িয়ে দিয়েছে সিসিক  » «   সিলেটে ফিজায় মেয়াদোত্তীর্ণ পণ্য  » «   জগন্নাথপুরে জিনের ‘গুপ্তধন’ নিয়ে তোলপাড়  » «   দেশে ফিরলেন সাগরে বেঁচে যাওয়া সিলেটের ১৩ যুবক, বিমানবন্দরে জিজ্ঞাসাবাদ  » «  

কারাগারে যেমন আছেন হিরো আলম

সুরমা নিউজ ডেস্ক:
নারী নির্যাতন মামলায় গ্রেপ্তার আলোচিত মডেল-অভিনেতা হিরো আলম এখন বগুড়ার জেলা কারাগারে রয়েছেন। সেখানে তিনি ভালো ও সুস্থ আছেন বলে জানিয়েছেন জেল সুপার মোকাম্মেল হোসেন।

আজ রোববার বগুড়ার জেল সুপার মোকাম্মেল হোসেন জানান, হিরো আলমকে গত বৃহস্পতিবার বিকেল ৫টার দিকে কারাগারে আনা হয়। জেলের নিয়ম অনুযায়ী প্রথম দিন রাতের খাবার হিসেবে তাকে খিচুড়ি দেওয়া হয়েছিল। কারাগারের অন্য বন্দীদের মতো গতকাল শনিবার সকালে রুটি ও বুট, দুপুরে ভাত, ডাল ও সবজি এবং রাতে মাছ-ভাত খাওয়ানো হয়েছে তাকে।

জেল সুপার আরও জানান, কারাগারের সেলে থাকলেও হিরো আলম নিয়ম-কানুন মেনে চলছেন। কারাগারে তার অনেক ভক্ত রয়েছেন। ভক্তদের বিড়ম্বনা থেকে রক্ষার জন্য নিরাপত্তার স্বার্থে তাকে সেলে রাখা হয়েছে।

গত বুধবার রাত সাড়ে ১০টার স্ত্রীকে নির্যাতনের মামলায় হিরো আলমকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। শ্বশুর সাইফুল আলম খোকন তার মেয়ে সাবিহা আক্তার সুমিকে নির্যাতনের অভিযোগ এনে হিরো আলমের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন আইন মামলা করেন।

মামলায় খোকন অভিযোগ করেন, ২ লাখ টাকা যৌতক চেয়ে হিরো আলম তার মেয়েকে শহরতলির এরুলিয়ায় পালিপাড়ায় তার বাড়িতে নির্যাতন করে আসছিলেন। মেয়ের ওপর নির্যাতন সহ্য করতে না পেরে তিনি তাকে এক লাখ টাকা যৌতুকও দেন। কিন্তু তারপর আরও এক লাখ টাকা যৌতুক দাবি করে হিরো আলম তার মেয়েকে নির্যাতন করেই আসছিলেন। এই ধারাবাহিকতায় গত মঙ্গলবারও তিনি তার মেয়েকে অমানষিক নির্যাতন করেন। এতে তার মেয়ে গুরুতর আহত হন। পরে তাকে উদ্ধার করে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

গত বৃহস্পতিবার হিরো আলমকে বগুড়ার অতিরিক্ত চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আহম্মেদ শাহরিয়ারের আদালতে হাজির করা হয়। এ সময় হিরো আলমের পক্ষে আইনজীবী এস এম মাসুদার রহমান স্বপন তার জামিনের আবেদন করেন। কিন্তু শুনানি শেষে জামিন না দিয়ে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
Share on Facebook
Facebook
0Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin
Email this to someone
email
Print this page
Print

সর্বশেষ সংবাদ

error: Content is protected !!