সোমবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

নবীগঞ্জে মুশকিল আহসান ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল অনুষ্ঠিত

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি:
হাজার হাজার দর্শকের সমাগম ও বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ উপজেলার গজনাইপুর ইউনিয়নে ১৩তম শাহ্ মুশকিল আহসান নক-আউট ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার বিকালে স্থানীয় ছয়মৌজার আয়োজনে ও মুশকিল আহসান স্পোর্টিং ক্লাবের পরিচালনায় গজনাইপুর ইউনিয়নের সাতাইহাল ফুটবল মাঠে উক্ত ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত হয়। এতে নবীগঞ্জ সঈদপুর বাজার এফ সি আউশকান্দি ও বাহুবল সোনার বাংলা এস সি দিগম্বর অংশগ্রহণ করে ।

মাঠে খেলা গড়ানোর সাথে সাথে মাঠের চারিদিকে বাড়তে থাকে দর্শকদের চাপ দেখা দেয় উপচে পড়া ভিড় । খেলার প্রথমার্ধে উভয় দল একটি করে গোল আদায় করে নেয়। কিন্তু দ্বিতীয়ার্ধে কোনো দল গোল করতে না পারায় খেলা টাইব্রেকারে গড়ায়। টাইব্রেকারে নবীগঞ্জ সঈদপুর বাজার এফ সি আউশকান্দিকে পিছনে ফেলে আফ্রিকান গোল রক্ষককের অসাধারণ নৈপুণ্যতায় ৩-৪ গোলের ব্যবধানে বিজয়ী হয় বাহুবল সোনার বাংলা এস সি দিগম্বর। পরে বিজয়ী ও রানার্সআপ দলের মধ্যে পুরষ্কার বিতরণী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

পুরষ্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ব্রিটিশ এম্পায়ারের সদস্য সামছু উদ্দিন আহমেদ(এমবিই),বক্তব্য রাখেন হবিগঞ্জ ১ আসনে আওয়ামীলীগ মনোনীত প্রার্থী শাহনেওয়াজ মিলাদ গাজী, হবিগঞ্জ জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি এডঃ আবুল ফজল, নবীগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এডঃ আলমগীর চৌধুরী, নবীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও গজনাইপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ইমদাদুর রহমান মুকুল, উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান নাজমা বেগম, জেলা পরিষদের সদস্য এডঃ সুলতান মাহমুদ, এডঃ মুজিবুর রহমান কাজল, উপজেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক শিহাব আহমেদ চৌধুরী, আউশকান্দি ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মহিবুর রহমান হারুন, গজনাইপুর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান মোঃ শাহনেওয়াজ, দিনারপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের সাবেক প্রধান শিক্ষক দেওয়ান হোসাইন আহমেদ চৌধুরী, দিনারপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সদস্য শফিউল আলম বজলু। এছাড়াও এতে অন্যানের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, সাবেক মেম্বার তোয়াব উল্লাহ, আঃ মন্তাজ, হাজী চান্দ আলী, মহারাজ মিয়া, জমশেদ আলী, বর্তমান মেম্বার চুনু মিয়া, আব্দুল মুকিদ, আব্দুল আলী, স্বপন মিয়া, আব্দুল বশির, মোস্তফা মিয়া, ইছাক মিয়া, নুরুল হক তুহিন, সাবেক ফুটবলার চুনু মিয়া, ফুল মিয়া, আঃ শহিদসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক, সাংস্কৃতিক সংগঠনের লোকজন উপস্থিত ছিলেন। উক্ত ফাইনাল খেলায় আগত অতিথিবৃন্দ আগামীতে সাতাইহাল ফুটবল মাঠকে স্টেডিয়ামে রুপান্তিত করা হবে বলে আশ্বাস প্রদান করেন। পরে বিজয়ী ও রানার্সআপ দলের দলীয় ম্যানেজার ও অধিনায়কের হাতে পুরষ্কার তোলে দেন অতিথিবৃন্দ।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
Share on Facebook
Facebook
0Share on Google+
Google+
0Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin
Email this to someone
email
Print this page
Print

সর্বশেষ সংবাদ

error: Content is protected !!