সোমবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

একজন মডার্ন রাজনীতিবিদের হাল হকিকত

সারওয়ার চৌধুরী:
পিঁপড়ে মৌমাছির মত প্রাণীরাও কিন্তু ভবিষ্যতের চিন্তায় ব্যস্ত থাকে কিন্তু দুঃখের বিষয় আমাদের দেশের রাজনীতি পাগল অনেকেই সেই চিন্তা ভাবনার ধারে কাছেও যাওয়ার প্রয়োজন বোধ করেননা ! সেবার এক যুবনেতা আফসোস করে বলছিলেন এতদিন ধরে রাজনীতি করছি অথচ অনেক চেষ্টা তদ্বির করেও ইউনিয়ন নির্বাচনের নমিনেশনটা পেলামনা , অবশ্য আমি উনাকে যুবক না বলে পৌঢ়ই বলবো , আমার হিসেব মতে উনার বয়স পঞ্চাশের কম হওয়ার কথা নয়, যাইহোক তারপরও উনি যুবনেতা !

সাংগঠনিকভাবে উনি একটা রাজনৈতিক দলের ইউনিয়ন কমিটির সাধারন সম্পাদক ৷ উনি জানালেন সপ্তম শ্রেনীতে থাকতেই স্কুলের এক বড়ভাইয়ের হাত ধরে উনার রাজনীতিতে পদার্পন , নিজেকে নিবেদিত প্রান রাজনীতিবিদ মনে করেন , শুরু থেকে একই আদর্শ বুকে লালন করে রাজনীতি করে আসছেন ! সপ্তম শ্রেনীর একজন ছাত্র কি আদর্শ লালন করে রাজনীতিতে আসল সেটা জানতে চাইলে উনার উত্তরটা আমাকে সন্তোষ্ট করতে পারেনি ! উনি বললেন একজন মহান নেতার আদর্শ উনাকে প্রেরণা যোগায় , প্রশ্ন করলাম সেই আদর্শটা কি ? আমতা আমতা করে বললেন এই মানে দেশটাকে গড়তে হবে ! হুম , বুঝলাম দেশটাকে গড়তে হবে আর এটাই উনার আদর্শ ! — ” আচ্ছা সেই মহান নেতা কি দেশ গড়ার আগে নিজেকে গড়ে তোলার কথা বলেননি ? ” ভদ্রলোকের জটপট উত্তর , বলেছেন অবশ্যই বলেছেন ! ” বলেছেন তো এবার বলেন আপনার শিক্ষাগত যোগ্যতাটা কি ? আবারও কাতুমাতু হয়ে বললেন রাজনীতিতে ব্যস্ততার কারনে দু দুবার ইন্টারমিডিয়েট পরীক্ষা দিয়েও পাশ করা হয়ে উঠেনি ! বর্তমান পেশা জানতে চাইলেই বললেন ” দুইভাই লন্ডন প্রবাসী ” যদিও আমি উনার পেশা জানতে চেয়েছিলাম , ভাইদের কথা নয় ! ভাইদের ব্যাপারে অভিযোগও করলেন ” তারা ঠিকমত টাকা পয়সা দেয়না ,বাবা অবশ্য অনেক সম্পত্তি রেখে গেছেন তবে আজকাল ক্ষেত গেরস্তি করে কামলা খরচের পর লাভ হয়না বরং লোকসান হয় ! ” — আমার জিজ্ঞাসা ” নিজে কেন সময় দেননা ? ” মনে হল আমি বোধহয় খুবই রসাত্মক কিছু বললাম ,উনার সারামুখে হাসির ঝিলিক ” কি যে বলেন ভাই , আমি একজন রাজনৈতিক নেতা, দুই ভাই লন্ডনী, আর আমি করবো ক্ষেত গেরস্তি ? তাছাড়া রাজনৈতিক কর্মকান্ডের পর তো আর সময় পাওয়াই মুশকিল ! ”
” আচ্ছা , ভাইয়েরা যখন লন্ডনী তখন কিছু টাকা কড়ি আনিয়ে একটা ব্যাবসা করলেই তো পারেন ! ” আবারও রসালো হাসি ” ভাইয়েরা তো আর বিশ ত্রিশ লাখ টাকা একসাথে দেবেনা , যদিও দুইবার ছোট খাটো ব্যাবসা করার জন্য কিছু দিয়েছিল , জানালেন রাজনীতির কারনে ঠিকমত সময় না দিতে পারায় সেখানেও উনি সুবিধা করতে পারেননি ! ” আচ্ছা , লেখাপড়া ক্ষেত গেরস্তি ব্যাবসা বানিজ্য কিছুতেই আপনি সুবিধা করতে পারেননি , একটাই কারন আর সেটা হচ্ছে রাজনীতি ! এবার বলুন তো এত ত্যাগের বিনিময়ে যে রাজনীতি করছেন , নিজের কর্মক্ষম সময়টা প্রায় হারিয়ে ফেলেছেন , সেই রাজনীতি আপনি কেন করছেন ? ” উনার সোজাসোজি উত্তর —” জনসেবা ৷ “

ঠিক আছে, বুঝলাম আপনি একজন
জনদরদী,দেশদরদী মানুষ ! কিন্তু আপনার বর্তমান যে অবস্হা তাতে মনে হচ্ছে আপনি পুরোপুরি পরনির্ভরশীল , আপনার তো নিজেকে নিজে সেবা করার, সাপোর্ট করার মত কোন সামর্থ্যই নাই , ইচ্ছাও নাই ! তাহলে আপনি দেশসেবা, সমাজসেবা করবেন কিভাবে ? আপনি এখন আপনার ভাইদের জন্য বোঝা , দলের জন্য বোঝা , দেশের জন্য বোঝা ! আপনাকে মনোনয়ন না দিয়ে দল কিন্তু ভুল করেনি , আপনি বলছেন এতদিন ধরে রাজনীতি করে মুল্য পাননি , আমি বলবো আপনার তো কোন মুল্যই নেই , বিনামুল্যের জিনিস মুল্য দিয়ে কে খরিদ করবে ? বরং আপনার মত সময় নষ্ট না করে যারা নিজেদেরকে গড়ে তুলেছে , যারা তাদের পরিবার দল সমাজ এবং দেশের জন্যে সম্পদে পরিণত হয়েছে , দলাদলি কিংবা গ্রুপিং করে উপরে উঠা শিখেনি বরং নিজের যোগ্যতা দক্ষতা দিয়ে উঠে এসেছে তারা যদি গতকালও রাজনীতিতে আসে তবে তাদের মাধ্যমে নিঃসন্দেহে সবাই উপকৃত হবে লাভবান হবে দেশও এগিয়ে যাবে ৷ সুতরাং মুল্য পেতে হলে নিজেকে আগে মুল্যবান করে তুলুন ৷৷ ( শেষের প্যারাটা মনে মনে বলেছি , সরাসরি বলিনি , সরাসরি তো আর এভাবে বলা যায়না ! আর এভাবে সরাসরি না বলার কারনেই স্বঘোষিত রাজনীতিবিদ নামক একশ্রেনীর পরনির্ভরশীল শ্রেনী আমাদের জন্য দিন দিন কঠিন বোঝায় পরিণত হচ্ছে ৷ )

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
Share on Facebook
Facebook
0Share on Google+
Google+
0Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin
Email this to someone
email
Print this page
Print

সর্বশেষ সংবাদ

error: Content is protected !!