শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল, ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৬ বৈশাখ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ
সরকার কৃষি ও শিক্ষা ক্ষেত্রে প্রাধান্য দিচ্ছে : বালাগঞ্জে মাহমুদ উস সামাদ এমপি  » «   ওসমানীনগরে মামা শশুরের লালসার শিকার বিধবা নারী !  » «   হারানো বৃদ্ধাকে পরিবারের কাছে ফিরিয়ে দিলেন এএসআই জিয়াউর রহমান  » «   ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে ছাত্রলীগের কমিটি!  » «   লন্ডনে তারেক-জোবাইদার ব্যাংক হিসাব জব্দের নির্দেশ  » «   অক্টোবরে আ’লীগের কাউন্সিল, চ্যালেঞ্জ কী?  » «   নবম শ্রেণির বাংলা প্রশ্নে সানি লিওন-মিয়া খলিফা !  » «   বালাগঞ্জের উন্নয়নে সবাইকে দল-মতের ঊর্ধ্বে উঠে কাজ করতে হবে : মফুর  » «   আমার মূল লক্ষ্য জনগনের উন্নয়ন : ওসমানীনগরে মোকাব্বির খাঁন এমপি  » «   ওসমানীনগরে নানার বাড়িতে বেড়াতে এসে পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু  » «  

কোরবানির পশুর ধরণ ও বয়স নিয়ে বিধান

সুরমা নিউজ ডেস্ক:
সব পশু দিয়ে যেমন কোরবানি হয় না, তেমনি সব বয়সের পশু দিয়েও কোরবানি হয় না। এ ব্যাপারে কোরআন-হাদিসে সুনির্দিষ্ট বিধান রয়েছে।

মাসআলা : গৃহপালিত উট, গরু, মহিষ, ছাগল, ভেড়া ও দুম্বা এগুলোর নর-মাদি উভয়টি দ্বারাই কোরবানি করা জায়েয। এসব পশু ছাড়া অন্যান্য পশু যেমন হরিণ, বন্য গরু-গয়াল ইত্যাদি দ্বারা কোরবানি করা জায়েয নয়। (বাদায়েউস সানায়ে ৫/৬৯, কাযীখান ৩/৩৪৮)

মাসআলা : কোরবানির পশু মোটাতাজা, হৃষ্টপুষ্ট ও নিখুঁত হওয়া উত্তম। (মুসনাদে আহমদ, হা. ১৫৫৩৩)

মাসআলা : খাশীকৃত জন্তু দ্বারা কোরবানি করা জায়েয, বরং উত্তম। (সুনানে ইবনে মাজাহ, হা. ৩১১৩)

মাসআলা : উট কমপক্ষে ৫ বছরের হতে হবে। গরু ও মহিষ কমপক্ষে ২ বছরের হতে হবে। আর ছাগল, ভেড়া ও দুম্বা কমপক্ষে ১ বছরের হতে হবে। এর চেয়ে এক দিন কম হলেও কোরবানি হবে না। তবে ৬ মাসোর্ধ্ব ভেড়া ও দুম্বা যদি ১ বছরের কিছু কমও হয়, কিন্তু এমন হৃষ্টপুষ্ট হয় যে দেখতে ১ বছরের মতো মনে হয়, তাহলে তা দ্বারাও কোরবানি করা জায়েয। (বাদায়েউস সানায়ে ৫/৭০)

উল্লেখ্য, ছাগলের বয়স ১ বছরের কম হলে কোনো অবস্থাতেই তা দ্বারা কোরবানি জায়েয হবে না। (কাযীখান ৩/৩৪৮)

মাসআলা : কোরবানির পশুর বয়সের হিসাব আরবি বর্ষ হিসেবে ধর্তব্য হবে, এতে ইংরেজি বর্ষ থেকে সাধারণত এগারো দিন কমে বর্ষ পূর্ণ হয়। (কিফায়াতুল মুফতী ৮/২১৭)

মাসআলা : গর্ভবতী পশু দ্বারা কোরবানি জায়েয, তবে প্রসবের সময় আসন্ন হলে সে পশু কোরবানি করা মাকরূহ। (বাদায়েউস সানায়ে ৫/৭৯, ফাতাওয়া কাযীখান ৩/৩৫০)

মাসআলা : জবাইয়ের পর যদি বাচ্চা জীবিত পাওয়া যায় তাহলে সেটাও জবাই করা ওয়াজিব, তা জবাই না করে রেখে দিলে কোরবানির দিন অতিক্রম হয়ে গেলে তা সদকা করে দেওয়া ওয়াজিব। (কাযীখান ৩/৩৫০)

সূত্র: মাসিক আল-আবরার, ফকীহুল মিল্লাত ফাউন্ডেশন বাংলাদেশ।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
Share on Facebook
Facebook
0Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin
Email this to someone
email
Print this page
Print

সর্বশেষ সংবাদ

error: Content is protected !!