সোমবার, ২৩ জুলাই, ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৮ শ্রাবণ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ
নির্বাচনী কার্যালয়ে আগুন : দোষলেন কামরান, উড়িয়ে দিলেন আরিফ  » «   তামিমের সেঞ্চুরিতে বাংলাদেশের সংগ্রহ ২৭৯  » «   ওসমানীনগরে অর্ধ লক্ষাধিক টাকার অবৈধ কারেন্ট জাল আটক  » «   বিশ্বনাথে বাসের ছাদ থেকে পা ফসকে হেলপারের মর্মান্তিক মৃত্যু  » «   মৌলভীবাজারে স্বেচ্ছাসেবক দলের বিক্ষোভ মিছিল থেকে ৫ জন আটক  » «   এমপি মুহিবুর রহমান মানিকের পিতা জামায়াতের রুকন ছিলেন !  » «   নবীগঞ্জে অধ্যক্ষের ওপর হামলাকারী মুন্নার আদালতে আত্মসমর্পণ  » «   কমলগঞ্জের ৩৩৫ পরিবারের মাঝে নতুন বিদ্যুৎ সংযোগ উদ্বোধন  » «   সিলেটে ডাক্তারের অবহেলায় রোগীর মৃত্যুর অভিযোগ  » «   নাটক সাজিয়ে মানুষের মন জয় করা যায় না : কামরান  » «  

মৌলভীবাজারে টিসিবি’র পণ্য কেউ কিনছে না

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি:
বর্তমান বাজার দরের সাথে ব্যবধান না থাকায় মৌলভীবাজারে টিসিবি পণ্য বিক্রি করতে পারছেন না ডিলাররা। ফলে টিসিবি’র পণ্য তুলে তাদেরকে লোকসান গুণতে হচ্ছে । রমজান উপলক্ষে মৌলভীবাজার জেলা সদরের বিভিন্ন পয়েন্টে ৬ মে থেকে আগামী মাসের ১১ জুন পর্যন্ত টিসিবি’র ভ্রাম্যমাণ ট্রাক থেকে ন্যায্যমূল্যের ছোলা, ডাল, সোয়াবিন ও চিনি বিক্রি চলছে। শুক্রবার (১৮ মে) থেকে নতুন করে টিসিবি পণ্যের রেট কমানো হচ্ছে বলে জানিয়েছেন টিসিবির শেরপুর সিলেট বিভাগীয় আঞ্চলিক প্রধান মো: ইসমাইল মজুমদার।

সদর উপজেলার টিসিবির ডিলার আবদুল খালেক বলেন, ‘টিসিবির পণ্য আর বিক্রি করছি না। বাজারের দর আর টিসিবির পণ্যের রেট প্রায় এক। আবার ২/১ টি পণ্য বাজার থেকে এখানে দাম বেশি। তাই ক্রেতারা টিসিবির পণ্য কিনতে চাইছে না। এসব পণ্য বিক্রি করে লাভ নেই। এছাড়া ট্রাকের ভাড়া বেশি, শ্রমিকের মজুরি ৪০০ টাকা। তিনদিন মাল বিক্রি করে আমার ৬০/৭০ হাজার টাকা লোকসান হয়েছে। এখন আর টিসিবির পণ্য বিক্রি করছি না। টিসিবি পণ্যের দাম বাড়ানোর কারণ জানতে চাইলে তিনি বলেন,’সরকার ভালো জানে। আমরাতো ব্যবসায়ী।’

টিসিবি ও ডিলার সূত্রে জানা গেছে, একটি ট্রাকে প্রতিদিন ৬০০ কেজি ছোলা, ২৫০ কেজি মসুর ডাল, ৩০০ কেজি চিনি এবং ২০০ লিটার তেল (৫ লিটার করে ৪০টি বোতল) সরবরাহ করছে টিসিবি। প্রতি কেজি ছোলা ৭০, ডাল ৫৫, চিনি ৫৫ এবং প্রতি লিটার তেল ৮৫ টাকায় বিক্রি হয়। টিসিবির হিসাবে একটি ট্রাক থেকে ২৭০ জন মানুষ পণ্য কিনতে পারবেন। এক বোতল করে তেল ৪০ জন, চিনি পাঁচ কেজি করে ৬০ জন, ডাল পাঁচ কেজি করে ৫০ জন এবং ছোলা পাঁচ কেজি করে ১২০ জন কিনতে পারেন।

তবে টিসিবির ডিলার তাঁজ এন্টারপ্রাইজের মোস্তফা মিয়া বলেন, ‘পণ্যের মান ভালো, বাজারে এসব মালের দাম একই, যার ফলে টিসিবির পণ্য ক্রেতাদের চাহিদা কম।’

এ বিষয়ে টিসিবির শেরপুর সিলেট বিভাগীয় আঞ্চলিক কার্যালয় প্রধান মো. ইসমাইল মজুমদার বলেন, ‘এখন শুধু ভ্রাম্যমাণ ট্রাকে টিসিবির পণ্য বিক্রি চলছে। ডিলার এখনও দেই নাই। নতুন করে ডিলার নিয়োগ দেওয়া হবে।’

তিনি আরও বলেন, ছোলার রেট ছিল ৭০ টাকা,নতুন করে ৬৫ টাকা করা হয়েছে। খেজুর ছিল ১২০ টাকা ছিল, এখন ১০০ টাকা করা হয়েছে। ডালের রেট ছিল ৫৫ টাকা, এখন ৫০ টাকা করা হয়েছে। আর বাকি সব পণ্যের রেট ঠিক আছে। ৬ মে শনিবার থেকে বিক্রি শুরু হয়েছে। চলবে আগামী ১১ জুন পর্যন্ত।

তিনি আরও বলেন, প্রথম দিকে মৌলভীবাজারে দুইজন ডিলার পণ্য বিক্রি করেছিলেন, এখন শুধু একজন বিক্রি করছেন। কারণ মালের দাম বেশি থাকায় কেউ মাল উঠাইতে আগ্রহী হয়নি।’

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
Share on Facebook
Facebook
0Share on Google+
Google+
0Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin
Email this to someone
email
Print this page
Print

সর্বশেষ সংবাদ

error: Content is protected !!