বৃহস্পতিবার, ১৮ জানুয়ারি, ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ মাঘ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ
সিলেটে দেশের ৩য় বৃহত্তম চিড়িয়াখানা, চালু হচ্ছে সীমিত জনবল নিয়ে  » «   ছাত্রলীগকর্মী তানিম হত্যা : আসামী ডায়মন্ড ও রুহেল ৫ দিনের রিমান্ডে  » «   জামেয়া গহরপুর মাদ্রাসার ৬১ তম বার্ষিক মাহফিল আজ  » «   সিলেটে অস্ত্রসহ হত্যা মামলার আসামি গ্রেপ্তার  » «   কার্ডিফের মতো সিলেট গড়তে চাই : মেয়র আরিফ  » «   সুনামগঞ্জে বোরো আবাদ : কৃষকদের চরম হতাশা, লক্ষ্যমাত্রা সোয়া ২ লাখ হেক্টর জমি  » «   সিলেটে পাথর কোয়ারীতে অভিযান : ১৫টি লিস্টার মেশিন ধ্বংস  » «   সিলেটে বিএনপির বিক্ষোভ মিছিল  » «   সিলেটে ওসমানী স্মৃতি পরিষদের শীতবস্ত্র বিতরণ  » «   ওসমানীনগরে ইলিয়াস আলীর জন্য বিএনপি নেতা ফারুকের উদ্যোগে শীতবস্ত্র বিতরণ  » «  

রাজনীতিবিদের মুখ এখন আর মনের কথা বলেনা

সারওয়ার চৌধুরী:
আমাদের দেশের অনেক রাজনীতিবিদের মুখ এখন আর তাদের মনের কথা বলেনা , মনটা উরু উরু ইউরোপ আর আমেরিকায় , নতুবা পড়শী মালয়েশিয়ায় ! মুখটায় শুধু মুল্যহীন দেশপ্রেম আর আদর্শের মোটা মোটা বুলি । কিছু স্বঘোষিত দেশপ্রেমিক রাজনীতিবিদ আছেন , যারা দাবী করেন দেশের আইন শৃঙ্খলা , নিরাপত্তা ব্যবস্থা সবকিছুই স্বাভাবিক । আধুনিকতার ছোঁয়া সর্বত্র , দেশটা এখন ডিজিটাল , সুখ শান্তির স্পর্শে দেশের জনগণ এখন সবচেয়ে সুসময়টা পার করছে । দূর্নিতি , স্বজনপ্রীতি , শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে মারামারি রাহাজানি এখন যেকোন সময়ের তুলনায় সর্বনিম্ন পর্যায়ে । উনারা দেশ থেকে এই প্রবাসে আসেন বছরে একবার কিংবা দুবার ! মিটিং করেন , সমাবেশ করেন আর এসব বড় বড় বুলি আওড়ান । আমরা সাধারণ প্রবাসীরা , কেউ পরিবার নিয়ে আছি , কেউবা পরিবার দেশে রেখে এসেছি— দিনরাত পরিশ্রম করে প্রবাসে এবং দেশে থাকা পরিবারের প্রতি নিজেদের দায়িত্ব কর্তব্য পালন করার সংগ্রাম চালিয়ে যাচ্ছি , তারা অনেক কষ্টে সময় বের করে দেশ বরেন্য এ সমস্ত রাজনীতিবিদদের মিটিং সমাবেশে উপস্হিত হয়ে তাদের সুখ বাক্যগুলো মনযোগ সহকারে শ্রবণ করি । ক্ষমতার চরম দাম্ভিকে তারা দাবী করেন দেশের আইন শৃঙ্খলা তাদের নিয়ন্ত্রণাধীন , নিরাপত্তার চাদরে মোড়ানো আছে সব সেক্টর । এত নিরাপত্তা যারা প্রদান করেন তারাই তাদের সন্তানদেরকে ইংলেন্ড আমেরিকা কানাডা কিংবা অস্ট্রেলিয়ায় পাঠিয়ে উচ্চ শিক্ষিত করেন —- শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে খুন খারাবি , অস্ত্রের ঝনঝনানি আর নিরাপত্তার প্রশ্ন তুলে । কেউ কেউ আবার চেষ্টা করেন নিজেদের জন্যে প্রবাসে একটা স্হায়ী ঠিকানা করতে , কারন হিসেবে দাঁড় করান দেশের অস্হিতিশীল অবস্হা , নাজুক নিরাপত্তা ব্যবস্থা , সর্বোপরি প্রাণ নাশের বিভিন্ন সম্ভাবনা ইত্যাদি , ইত্যাদি । তারা শত সহস্র ছাত্র কিংবা আম- জনতাকে রক্তের হুলি খেলায় উৎসাহিত করেন আর নিজের এবং নিজেদের সন্তানের জন্যে মসৃণ নিরাপদ লাল গালিচার সন্ধান করেন । এ সকল দেশপ্রেমিক রাজনীতিবিদরা দেশের ভবিষ্যত অন্ধকারে ছুড়ে মেরে নিজের আখের গোছাতে ব্যস্ত , তারা চাননা নিজেদের সন্তানেরা এই জীবন-মরণ খেলায় মেতে উঠুক আর সাধারন ঘরের সন্তানেরা এই দূর্বেধ্য মায়াজাল ছিড়ে বেরিয়ে আসুক — কেননা এরাই যে তাদের স্বার্থসিদ্ধির হাতিয়ার । নিজেদের সন্তানেরা তাদের কাছে ” মানিক-রতন , হীরা-পান্না ” । আর গরীব, মধ্যবিত্ত সাধারণ ঘরের সন্তানেরা যারা কাড়ি কাড়ি টাকা চায়না …. চায়না রঙ – বেরঙের দালান কোটা , তাদের চাওয়া লেখাপড়া করে সীমিত আয়ের মাধ্যমে একটা স্হিতিশীল শান্তিময় জীবন । দেশপ্রেমিক এসকল রাজনীতিবিদরা সেই সকল শান্তিপ্রিয় যুব সমাজকে আগুন নিয়ে খেলতে দেন , আগুনের সেই খেলায় কেউ যদি পুড়ে ছাই হয়ে যায় —- সেইদিকে ফিরে তাকাবার আর প্রয়োজন তারা মনে করেননা বরং সেই পোড়া ছাইকে এক ফুৎকারে উড়িয়ে দিয়ে নিজের অবস্হানটা পরিষ্কার করে নেন ।

যদি দেশকে ভালবাসেন , দেশের মানুষকে ভালবাসেন আর প্রকৃত দেশপ্রেমিক রাজনীতিবিদ হয়ে থাকেন তবে মিথ্যা আর লোক ঠকানো মায়া কান্না না করে বাস্তব মুখী পদক্ষেপ নেন । সরল নিষ্পাপ যুব সমাজকে নিজের ব্যক্তি স্বার্থে ব্যবহার না করে তারা যাতে সুন্দর -স্বাভাবিক আর স্বনির্ভর ভাবে বিকশিত হতে পারে সেই ব্যবস্থা করেন । বিদেশকে যখন নিজের জন্যে নিরাপদ মনে করেন এবং নিজের সন্তানকে উচ্চ শিক্ষার জন্যে পাঠান তখন অবশ্যই জানেন সেই সকল দেশের শিক্ষার মান , পরিবেশ , শিক্ষার্থীদের মন মানসিকতা কিংবা তাদের প্রাপ্ত সুযোগ সুবিধা । ক্ষমতা , আইন -শৃঙ্খলা সবই যখন আপনাদের হাতে — আর এ সকল দিশেহারা , সচেতন অভিভাবকহীন যুব সমাজও আপনাদেরকে সরল মনে বিশ্বাস করে , শ্রদ্ধা করে , নিজেদের পথ নির্দেশক হিসেবে গ্রহণ করে , তখন তাদের সেই সরলতাকে নিজের ব্যক্তি স্বার্থে ব্যবহার না করে নিশ্চিত করুন সেই রকম পরিবেশ , শিক্ষা ব্যবস্থা — যেখানে আপনি পাঠিয়েছেন কিংবা পাঠাতে উদগ্রীব আপনার ” মানিক-রতন ” আর ” হীরা-পান্নাকে ” । এই সমস্ত নিষ্পাপ দিশেহারা যুব সমাজ আপনাদের কাছে ধুলো বালি হলেও কারও না কারও কাছে — ” হীরা-মানিক ” , বুকের ধন । নিজেদের সন্তানদেরকে যেভাবে আপনি কিংবা আপনারা চাননা অস্তিরতায় , নিরাপত্তাহীন পরিবেশে ছেড়ে দিতে ঠিক সেইভাবে তাদের কথাও চিন্তা করুন , বেরিয়ে আসুন মুখোশের আড়াল থেকে ! হয়ে উঠুন প্রকৃত দেশপ্রেমিক , প্রকৃত রাজনীতিবিদ । আপনাদের চিন্তা চেতনা হোক স্বার্থহীন , কথার প্রকাশ আর প্রয়োগটা যেন হয় সমান্তরাল ।

(সুরমানিউজ এর পাঠককলামে প্রকাশিত সব লেখা পাঠক কিংবা লেখকের নিজস্ব মতামত। এই সংক্রান্ত কোনো ধরনের দায় সুরমানিউজ বহন করবে না। সুরমানিউজ এর কোনো লেখা কেউ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করতে পারবেন না।)

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন
Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterShare on LinkedIn0Email this to someonePrint this page

সর্বশেষ সংবাদ